ঢাকা | বৃহঃস্পতিবার, ২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৯ মাঘ ১৪২৯

WALTON

ল্যাবুশেনের ‘দেড় শ’, বড় সংগ্রহের পথে অজিরা

নট আউট ডেস্ক
প্রকাশিত: ৩০ নভেম্বর ২০২২ ১৬:২৫

পার্থে ১৫৪ রানে অপরাজিত থেকে দিন পার ল্যাবুশেনের। গেটি ইমেজ পার্থে ১৫৪ রানে অপরাজিত থেকে দিন পার ল্যাবুশেনের। গেটি ইমেজ

নট আউট ডেস্কঃ পার্থে শুরু হয়েছে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়া ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের দুই টেস্টের সিরিজ। সিরিজের প্রথম টেস্টের প্রথম দিন শেষে রান পাহাড়ের ইঙ্গিত দিয়ে রেখেছে স্বাগতিকরা। সফরকারী বোলারদের হতাশ অবিচ্ছিন্ন দেড় শ রানের ইনিংস খেলেছে অজি ব্যাটার মার্নাস ল্যাবুশেন। তাতেই প্রথম দিন শেষে তিনশ ছুঁই ছুঁই সংগ্রহ করে প্যাট কামিন্সের দল।

এদিন আগে ব্যাট করে, প্রথম দিন শেষে ২ উইকেট হারিয়ে ২৯৩ রান তুলেছে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়া। অবিচ্ছিন্ন ১৫৪ রানের ইনিংস খেলে দিন শেষ করেছেন ল্যাবুশেন। জোড়া হাফ সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন উসমান খাজা ও স্টিভেন স্মিথ। 

পার্থে এদিন টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়া। ব্যাট করতে নেমে অবশ্য দিনের শুরুতেই ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নারের উইকেট হারায় স্বাগতিকরা। দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে দলের হাল ধরেন আরেক ওপেনার উসমান খাজা ও মার্নাস ল্যাবুশেন। দু'জন মিলে গড়েন অবিচ্ছিন্ন শতাধিক রানের জোট। হাফ সেঞ্চুরি তুলে নেন দু'জনই।

এই জুটিতে ভর করে দলীয় দেড় শ পার করে অজিরা। ১৫১ রানের মাথায় খাজার বিদায়ে ভাঙে এই জুটি। বিদায়ের আগে অবশ্য ১৫৯ বল খেলে এই ওপেনার করেন ৬৫ রান। তৃতীয় উইকেট জুটিকে স্মিথকে নিয়ে ফের জুটি গড়েন ল্যাবুশেন। এই জুটিতে চড়েই দলীয় দুইশ পার করে তারা। দুর্দান্ত শতক হাঁকান ল্যাবুশেন।

শেষ পর্যন্ত এই জুটি প্রথম দিনে আর ভাঙতে পারেনি ক্যারিবীয় বোলাররা। অবিচ্ছিন্ন দেড় শতাধিক রানের ইনিংস খেলেন ল্যাবুশেন। হাফ সেঞ্চুরি তুলে নেন স্মিথও। প্রথম দিনে ৯০ ওভার ব্যাট করে ২ উইকেট হারিয়ে ২৯৩ রান তুলতে পারে স্বাগতিকরা৷ ১৬ চার ও ১ ছক্কায় ২৭০ বলে ১৫৪ রান নিয়ে দিন পার করেন ল্যাবুশেন। ৭ চারে ১০৭ বলে ৫৯ রান করেছেন স্মিথ।

 

 

-নট আউট/টিএ



আপনার মূল্যবান মতামত দিন:

এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর

বাবরের বিশ্বরেকর্ড, রান পাহাড়ে চড়ল পাকিস্তান

আগা সালমানকে নিয়ে দিনের বাকিটা শেষ করেন বাবর আজম।

হৃদয় জিতলেন সরফরাজ, ‘ড্র’ হলো করাচি টেস্ট

জিততে হলে শেষ ১১ ওভারে পাকিস্তানের প্রয়োজন ছিল ৪৯ রান, হাতে ৪ উইকেট।

‘তিন’ সেঞ্চুরিতে পাল্টা জবাব পাকিস্তানের

১১৪ রানে শফিক ফিরলে ভাঙে ইমামের সঙ্গে ২২৫ রানের জুটি৷